বিশে^র সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়েছে বাংলাদেশ

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট
ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার বজলুল করিম চৌধুরী বলেছেন, বর্তমান সরকারের সময়ে আমাদের জাতীয় আয় বেড়েছে। নারী-পুরুষ সমতা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। উন্নয়নের সকল সূচকেই এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় জেলার ওসমানী পৌর স্টেডিয়াম সংলগ্ন মাঠে ‘উন্নয়ন মেলা ২০১৮’ দ্বিতীয় দিনের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। আলোচনার বিষয়বস্তু ছিল ‘‘রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ উন্নয়নের মহাড়কে বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ।’’ বজলুল করিম চৌধুরী বলেন, আজকের এই মেলায় অংশগ্রহণ করতে পেরে আমি আনন্দিত। এই উন্নয়ন মেলায় অংশগ্রহণ করার সুযোগ হতো না যদি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্নয়ন না করতেন। তিনি দায়িত্ব গ্রহণের পূর্বে যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন সেসব প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের সেবাগুলো এখন মানুষের হাতের মুঠোয় চলে আসছে। তিনি আরো বলেন, আমরা যারা সরকারি কর্মকর্তা আছি তাদের উচিত বর্তমান সরকারের ভিশন বাস্তবায়ন করার জন্য কাজ করা। যার যার অবস্থান থেকে স্বচ্ছতার সাথে কাজ করে যেতে হবে। আসুন আমরা সকলে মিলে আগামী প্রজম্মের জন্য একটি সুন্দর দেশ গড়ে তুলি। নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়ার সভাপতিত্বে এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, রাষ্ট্রীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত ক্রীড়া সংগঠক কে ইউ আকসির, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি খবির আহম্মেদ ও মহানগর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক শাহ নিজাম। অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসকের সহধর্মিনী ও জেলা লেডিস ক্লাবের সভানেত্রী নাজমুন নাহার ও বিভাগীয় কমিশনারের সহধর্মিনী নাজমুন নাহার বজলুল। কে ইউ আকসির বলেন, দূর্নীতি প্রতিরোধ মুখে বললেই হবে না। এটা কার্যকর করতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ দূর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশ গড়ার লক্ষে কাজ করে যাচ্ছেন। শাহ নিজাম বলেন, আমরা এমপি শামীম ওসমানের নেতৃত্বে সন্ত্রাসমুক্ত আধুনিক নারায়ণগঞ্জ গড়ে তুলবো। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় থাকলে বাংলাদেশ সোনার বাংলা হিসেবে গড়ে উঠবে। সভাপতি বক্তব্যে জেলা প্রশাসক রাব্বী মিয়া বলেন, আমরা সকলে মিলে এমন একটি অর্থনেতিকভাবে সমৃদ্ধশালী দেশ রেখে যেতে চাই, যাতে করে পরবর্তী প্রজন্ম আমাদেরকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করে। আমরা যেভাবে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্মরণ করি। আলোচনা সভার আগে নারায়ণগঞ্জে বিভিন্ন শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানের ছাত্র-ছাত্রীদের অংশগ্রহণে কুইজ ও বিতর্ক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মো. মোখলেসুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক জসিমউদ্দিন হায়দার, মো. রেজাউল বারী, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মো. আসাদুজ্জামানসহ সরকারী বিভিন্ন পর্যায়ের কমকর্তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *