অনন্ত জলিল তার কথা রাখলেন…

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

 

সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত তিতুমীর কলেজের ছাত্র রাজীব হোসেনের ছোট দুই ভাইয়ের দেখভালের দায়িত্ব নিয়ে তার কথা রাখলেন চিত্রনায়ক অনন্ত জলিল।তাদের সব খরচ নিতে চাওয়ার দুদিনের মাথায় তাদের থাকা-খাওয়া ও পড়াশোনার ব্যবস্থা করেছেন তিনি।

জানা গেছে, সাভারের হেমায়েতপুরে তাদের থাকার জন্য বাসা ঠিক করা হয়েছে। শিগগিরই স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় তাদের ভর্তি করানো হবে।ঢাকার কারওয়ান বাজারে দুই বাসের চাপায় হাত হারানো তিতুমীর কলেজের ছাত্র রাজীব হোসেন চিকিৎসাধীন সোমবার মধ্যরাতে মারা যান।  রাজীবই তার ছোট দুই ভাইয়ের দেখভাল করতেন বলে গণমাধ্যমের খবর জানার পর মঙ্গলবার ফেসবুকে দেয়া এক স্ট্যাটাসে অনন্ত জলিল লেখেন- বাবা-মা হারা এই সন্তান তার ছোট দুই ভাইকে পিতামাতার স্নেহ দিয়ে আগলে রেখেছিল। কিন্তু রাজীবের অকাল বিদায়ে তার দুই ছোট ভাইয়ের ভবিষ্যৎ হুমকির মুখে পড়েছে। তাই আমার জন্মদিনে আমি চাইছি যে পরিবারহারা এ দুই সন্তানের পড়ালেখার দায়িত্ব নিতে। ঘোষণা দেয়ার দুদিনের মধ্যেই দুই ভাইয়ের জন্য সব বন্দোবস্তই ইতিমধ্যে করে ফেলেছেন বলে জানান অনন্ত জলিল।পেশাগত জীবনে গার্মেন্টস ব্যবসায়ী অনন্ত জলিল সামাজিক কর্মকাণ্ডের অংশ হিসেবে এ পর্যন্ত তিনটি এতিমখানা নির্মাণ করেছেন। মিরপুর ১০-এ বাইতুল আমান হাউজিং ও সাভার মধুমতি মডেল টাউনে আছে এতিমখানাগুলো। বছরখানেক ধরেই ধর্মকর্মে মনোযোগী হয়েছেন এ অভিনেতা। ইসলামের দাওয়াত নিয়ে ঘুরছেন দেশ-বিদেশে।

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *