ফ্রান্সে বিক্ষোভ দমনে জরুরি অবস্থার কথা ভাবছে সরকার

জ্বালানী নিয়ে ফ্রান্সে চলা সহিংস বিক্ষোভ দমনে জরুরি অবস্থা জারি করার কথা ভাবছে সরকার। ফ্রান্স সরকারের মুখপাত্র বেঞ্জামিন গ্রিভিউক্সের বরাত দিয়ে এমনটি জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা রয়টার্স।

এই বিষয়ে গ্রিভিউক্স বলেন, এই ধরণের ঘটনা যাতে আর না ঘটে সে জন্য কি ব্যবস্থা নিতে হবে সেটি আমাদের ভাবতে হবে। জরুরী অবস্থা জারি করা হবে কিনা এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রোববার বৈঠকে এই বিক্ষোভ দমনে সকল উপায় নিয়ে আলোচনা করবেন।

এদিকে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ শনিবার তার বিরুদ্ধে বিক্ষোভকারীদের বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীদের তীব্র সমালোচনা করেছেন।

বুয়েন্স আয়ার্সে জি২০ শীর্ষ সম্মেলনে এক সংবাদ সম্মেলনে ম্যাক্রোঁ বলেন, ‘আমি কখনোই সহিংসতা বরদাস্ত করব না।’

তিনি আরো বলেন, ‘তাদেরকে সনাক্ত করে বিচারের সম্মুখীন করা হবে।’

ম্যাক্রোঁ বলেন, ‘আমি সব সময়ই সমলোচনা ও বিতর্ককে সম্মান করে এসেছি এবং আমি সব সময়ই বিরোধীদের কথা শুনবো।

প্রসঙ্গত, জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির পর ফ্রান্সে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে।প্যারিসসহ বিভিন্ন শহরে জ্বালানি মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে ম্যাক্রোঁর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করে বিক্ষোভকারীরা। জ্বালানি মূল বাড়ার কারণে জীবনযাত্রার ব্যয়ও বেড়ে গেছে।

About ডান্ডিবার্তা

View all posts by ডান্ডিবার্তা →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *