মায়ের অপরাধে শিশুরও হাজতবাস

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

কক্সবাজারের টেকনাফ থেকে ইয়াবা সাপ্লাই দিতে এসে ফতুল্লার সাইনবোর্ড এলাকায় পুলিশের হাতে আটক হলো তাসলিমা ও তার ভাই ইউনুস আলী। এসময় তাদের কাছ থেকে ৫৫০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ। সূত্রে জানাযায়, টেকনাফ মনেরখোলা এলাকার সাইদুলের স্ত্রী তাসলিমা ও তার ভাই ইউনুস আলী শহরের তল্লা রেললাইন এলাকায় লাল মিয়ার স্ত্রীকে ইয়াবা দিতে এসে গত শনিবার বিকালে পুলিশের হাতে আটক হয়। আটকের পর পুলিশ তাসলিমার আনুমানিক ৩ বছরের শিশুসহ তাকে একই হাজতে বন্দি করে রাখে। ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক সাফিউল আলম জানান, সাইনবোর্ড এলাকা থেকে তাসলিমা ও তার ভাই ইউনুস ও শিশুকে সহ আটক করে থানায় নিয়ে আসি। পরে তাকে তল্লাশি করে কোন মাদক পাওয়া যায়নি। পরবর্তীতে এক মহিলার সহযোগিতায় পায়ুপথে ১১টি ক্যাপসুল কস্টেপ মোড়ানো (প্রতি ক্যাপসুলে ৫০ পিস) ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। সে আরও জানায়, তাসলিমার সাথে থাকা বাচ্চাটিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য তার আত্মীয়ের সাথে যোগাযোগ করলেও তারা কেউ বাচ্চাটিকে নিতে আসেনি। এসময় হাজতখানায় তাসলিমার সাথে কথা বলে জানাযায়, তার কাছ থেকে ১ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। ফতুল্লা মডেল থানার ওসি (অপারেশন) মজিবুর রহমান জানান, বাচ্চার ফ্যামেলির কেউ না থাকাতে বাচ্চাকে তার মায়ের সাথে রাখা হয়েছে।

About ডান্ডিবার্তা

View all posts by ডান্ডিবার্তা →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *