Home » প্রথম পাতা » শ্রী কৃষ্ণের জন্মাষ্টমী আজ

অন্দরমহলে আ’লীগ রাজপথে বিএনপি

০৫ আগস্ট, ২০২২ | ১০:২৫ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 63 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট নারায়ণগঞ্জ বিএনপি যখন রাজপথ কাঁপাচ্ছে ক্ষমতাসীনরা তখন আরাম-আয়েশ করে দিন পার করছে। নেতারা কমিটি নিয়ে তৎপর রয়েছে। কেউ কমিটিতে স্থান করে নিতে তৎপর, কেউ আগামী নির্বাচনে মনোনয়ন নিশ্চিত করতে, আবার কেউ দেশ বিদেশ ভ্রমণ নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন। আর এ সুযোগটা কাজে লাগিয়ে রাজপথ নিয়ন্ত্রণে নিয়ে নিয়েছে বিএনপি। ফলে  বিএনপির চলমান কর্মকান্ডে দলের কর্মীরা উজ্জীবিত হচ্ছে। দলের নেতারা চাচ্ছেন ভুল বুঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সরকার বিরোধী আন্দোলন বেগবান করতে। এ জন্য দলের কিছু নেতা ভূমিকা রাখছন। যে সমস্ত নেতাদের মধ্যে দূরত্ব তৈরি হয়েছিল সে সব নেতাদের এক টেবিলে বসানোর চেষ্টা চলছে। কেন্দ্রীয় নেতারা চাচ্ছেন ভুল বুঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে দলের সব নেতাদের রাজপথে নামাতে। ইতোমধ্যে কেন্দ্রীয় এবং স্থানীয় কয়েকজন নেতা কাজ শুরু করেছেন এমনটাই জানিয়েছেন দলের দায়িত্বশীল একাধিক সূত্র। সূত্র জানায়, নারায়ণগঞ্জ বিএনপি এখন সক্রিয় হয়ে উঠেছে।  নিয়মিত দলের নেতাকর্মীরা রাজপথে নেমে কেন্দ্রীয় কর্মসূচি পালন করছেন। নেতাকর্মীদের স্লোগান আর হুংকারে প্রকম্পিত করছে নারায়ণগঞ্জের রাজপথ। বলা চলে নারায়ণগঞ্জের রাজপথ বিএনপির জন্য নিরাপদ ঘাঁটিতে পরিনত হয়েছে। সরকারের সমালোচনার পাশাপাশি স্থানীয় নেতাদেরও কঠোর সমালোচনা করছেন নেতারা। এক সাথে আন্দোলন এবং দলীয় বিরোধ মিটাতে কাজ করছেন দলের নেতারা। পাশাপাশি কমিটি গঠনেও সাংগঠনিক ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। অন্যদিকে, নারায়ণগঞ্জ আওয়ামীলীগ এখনো নিশ্চিন্তে দিন কাটাচ্ছেন। দলের নেতারা একে অপরের বিরুদ্ধে দলীয় ফোরামে কথা বলার পাশাপাশি, সভা-সমাবেশেও দলের নেতাদের বিরুদ্ধে তীর্যক মন্তব্য করে দলের বিরোধ বাড়িয়ে দিচ্ছেন। দলের একাধিক শীর্ষ নেতার বিরুদ্ধে বক্তব্য দেয়াটা রুটিনে পরিনত করেছে বেশ কয়েকজন নেতা। প্রায় সময়ই দলের নেতাদের নিয়ে বিতর্কীত বক্তব্য দেয়া হচ্ছে। এ নিয়ে স্থানীয় এবং কেন্দ্রীয় নেতারা বিরক্ত, বিব্রত। এছাড়া কিছু নেতা দলের বিষয়গুলোকে গুরুত্ব না দিয়ে উদাসীন রয়েছে। কিছু নেতা দলে শীর্ষ পদের জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছে। কেউ কেউ জাতীয় নির্বাচনে অংশ নিতে দলীয় মনোনয়ন নিশ্চিত করতে তৎপর রয়েছে। এ নিয়ে দলে তুমুল প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে। তবে ক্ষমতাসীন দলের জন্য এসব পরিহার করা প্রয়োজন এমনটাই মনে করছেন আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে সংশ্লিষ্টরা।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *