Home » শেষের পাতা » স্কুল ছাত্র ধ্রুব হত্যায় খুনিদের গ্রেপ্তার দাবিতে মানববন্ধন

আইভীর নৌকায় উত্তাল শহর

০৪ ডিসেম্বর, ২০২১ | ৯:০১ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 100 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

অনেক জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে অবশেষে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে মেয়র পদে আিওয়ামী লীগ নৌকার মাঝি হিসেবে বর্তমান মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভীর নাম ঘোষণার পর নারায়ণগঞ্জ শহরে স্লোগানে স্লোগানে উত্তাল হয়ে উঠে। গতকাল শুক্রবার রাত পৌনে ৮টায় নৌকা প্রাপ্তির খবরে শহরের আওয়ামী লীগ অফিসে অপেক্ষারত নেতাকর্মী সমর্থকেরা উল্লাস শুরু করেন। ‘শেখ হাসিনা, আওয়ামী লীগ, নৌকা, আইভী আপা’ স্লোগানে উত্তাল করে তুলেন শহর। বের হওয়া মিছিল শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে আবারো আওয়ামী লীগ অফিসে গিয়ে শেষ হয়। প্রসঙ্গত বহু জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে অবশেষে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগ নৌকার মাঝি নির্ধারণ করেছেন বর্তমান মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভীকে যিনি ২০১৬ সালের ২২ ডিসেম্বর নির্বাচনে একই প্রতীক নিয়ে জয়ী হয়েছিলেন। ২০০৩ সালে বিএনপি ক্ষমতায় থাকাকালীন দুর্যোগ সময়ে ওই সময়ে বিলুপ্ত পৌরসভার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। আর সিটি করপোরেশন গঠনের পর ২০১১ সালের ৩০ অক্টোবরের নির্বাচনে আওয়ামী লীগ শামীম ওসমানকে সমর্থন দিলেও জনতার প্রার্থী হয়ে আইভী ১ লাখেরও বেশী ভোটে জয়ী হয়ে প্রথম নারী মেয়র নির্বাচিত হয়েছিলেন। গতকাল শুক্রবার রাতে ঘোষণা খবর পেয় শহরে মিছিল বের করে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। মেয়র পদের জন্য নারায়ণগঞ্জ থেকে আইভী ছাড়াও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক খোকন সাহা, জেলার সাধারণ সম্পাদক আবু হাসনাত শহীদ বাদল ও মহানগরের সহ সভাপতি চন্দন শীল দলের মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছিলেন। যদিও গত বৃহস্পতিবার বিকেল থেকে সন্ধ্যার মধ্যেই এই ঘোষণা দেয়ার কথা ছিলো। তাই চাপা উত্তেজনা ছিলো দিনব্যাপী। সকলের মধ্যে ছিল উৎকণ্ঠা। হঠাৎ করে সিদ্ধান্ত পিছিয়ে দেয়ায় গুঞ্জন আরও চওড়া হয়েছে। এদিকে গতকাল শুক্রবার নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী ঘোষণা করার কথা শুনে বিকেল ৪ টা থেকেই জেলা কার্যালয়ে জড়ো হতে শুরু করেন জেলার গুরুত্বপূর্ন নেতারা। অপেক্ষার প্রহর গুনতে গুনতে রাত পৌনে ৮টায় জানানো হয় আইভীর নাম। মুহূর্তের মধ্যে উল্লাসে ফেটে পড়েন কর্মী সমর্থকেরা। আগামী ১৬ জানুয়ারি নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ সিটিতে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ১৫ ডিসেম্বর। মনোনয়নপত্র বাছাই ২০ ডিসেম্বর। আর প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৭ ডিসেম্বর। গত ৩০ নভেম্বর নির্বাচন কমিশনের বৈঠক শেষে এ তফসিল ঘোষণা করেন ইসির সচিব হুমায়ুন কবীর খোন্দকার।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *