আজ: শুক্রবার | ১০ই জুলাই, ২০২০ ইং | ২৬শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ১৯শে জিলক্বদ, ১৪৪১ হিজরী | দুপুর ২:৪০

সংবাদের পাতায় স্বাগতম

উপজেলা নির্বাচন নিয়ে চ্যালেঞ্জের মুখে এসপি

ডান্ডিবার্তা | ১২ মার্চ, ২০১৯ | ২:১১

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট
জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর এবার আসন্ন উপজেলা পরিষদেও সুষ্ঠু নির্বাচন
সম্পন্নের চ্যালেঞ্জ নিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ জেলার প্রভাবশালী পুলিশ সুপার মো:
হারুন অর রশীদ পিপিএম, বিপিএম। তবে উপজেলা নির্বাচনকে কেউ সংসদ
নির্বাচনের সাথে তুলনা করলে তা ভুল হবে বলেও কড়া হুঁশিয়ারী উচ্চারন
করেছেন এই পুলিশ সুপার। আর এই নির্বাচনে যেন স্থানীয় মন্ত্রী এমপিরাও
কোন ধরনের হস্তক্ষেপ না করেন সেজন্য ইঙ্গিতে বার্তাও দিয়েছেন তিনি। আর
উপজেলা নির্বাচনে সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে পুলিশ সুপারের এমন কঠোর
মনোভাবকে ভোটের ক্ষেত্রে ইতিবাচক হিসেবেই দেখছেন রাজনৈতিক
বিশ্লেষকরা। তাদের মতে, যেহেতু নির্বাচনে ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগের
প্রতিদ্বন্দী হিসেবে আওয়ামীলীগই মাঠে সক্রিয় রয়েছে সেহেতু সংঘাত,
অরাজকতা রোধে পুলিশ প্রশাসনকেই দলীয় মতাদর্শের উর্ধ্বে উঠে দায়িত্ব
পালনের প্রধান ভূমিকা রাখতে হবে। তাই তেমনটা ধারনা করেই পুলিশ
সুপার হারুন অর রশীদ উপজেলা নির্বাচনে সুষ্ঠু ভোটের লক্ষ্যে কঠোর
পদক্ষেপ নিতে যাচ্ছেন। তবে শুধু তাই নয়, উপজেলা নির্বাচনকে ঘিরে
প্রার্থীদের নানান বিষয়ে অভিযোগ জানাতে এই প্রথমবারের মত জেলা
পুলিশের তিন সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠনের উদ্যোগও বেশ প্রশংসনীয় হয়েছে
বলে মন্তব্য করেছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। জানাগেছে, আগামী ৩১ মার্চ
চতুর্থ ধাপের উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে রূপগঞ্জ, সোনারগাঁ ও আড়াইহাজার
উপজেলায় এবং আগামী ১৮ জুন পঞ্চম ধাপের নির্বাচনে বন্দর উপজেলায়

ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।তাই এই নির্বাচনকে ঘিরে ঘিরে কাউকে কোন
প্রকারের অরাজকতা করতে দেয়া হবে না বলে হুঁশিয়ারী উচ্চারন করেছেন
পুলিশ সুপার মো: হারুন অর রশীদ পিপিএম, বিপিএম। গত ১০ মার্চ দুপুরে
জেলা প্রশাসকের কার্যলয়ের সম্মেলন জেলার সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারনী ফোরাম
আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় বক্তব্যকালে এই হুঁশিয়ারী উচ্চারন করেন
এসপি। তিনি বলেছেন, ‘এই নির্বাচনকে ঘিরে কেউ সংসদ নির্বাচন করে
যাবেন সেটা হবে না। এই কথা ভুলে যান। মানুষ শান্তিপূর্ণ পরিবেশে তার
ভোটাধিকার প্রয়োগ করবে। এজন্য যা যা করার প্রয়োজন তা আমরা
করবো। নির্বাচনের সময় মন্ত্রী, এমপিরা নিজ নিজ এলাকায় অবস্থান করবেন
কিনা সেটিও তাদের জানিয়ে দেয়া হবে।’ অপরদিকে, একইদিন উপজেলা
নির্বাচনে প্রার্থীদের অভিযোগ জানতে তিন সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করেছে
জেলা পুলিশ প্রশাসন। স্থানীয় গণমাধ্যমে প্রেরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তি বলা
হয়, “উপজেলা নির্বাচন-২০১৯” সংক্রান্ত নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ কর্তৃক
একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। প্রার্থীদের নির্বাচন সংক্রান্ত কোন প্রকার
অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট পুলিশ কর্মকর্তাদের সাথে যোগাযোগ করার জন্য
অনুরোধ করা হলো। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোহাম্মদ নূরে
আলম, মোবাইল: ০১৭১৩৩৭৪৫৭৬, পুলিশ পরিদর্শক (ডিআইও-১) মোঃ
মোমিনুল ইসলাম, মোবাইল: ০১৭১৩-৩৭৩৩৪৪ এবং পুলিশ
পরিদর্শক(ডিআইও-২) মোঃ সাজ্জাদ রোমন, মোবাইল : ০১৭১২-৭৪৮৮৬০।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *