Home » শেষের পাতা » স্কুল ছাত্র ধ্রুব হত্যায় খুনিদের গ্রেপ্তার দাবিতে মানববন্ধন

উপদেষ্টা পদ থেকে তৈমূর প্রত্যাহার

০৪ জানুয়ারি, ২০২২ | ৮:২০ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 52 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারকে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা কাউন্সিলের পদ থেকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। গত রোববার বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী সাক্ষর করা এক চিঠিতে এ তথ্য জানানো হয়। তবে গতকাল সোমবার বিষয়টি প্রকাশ পায়। এরআগে জেলা বিএনপির আহবায়কের পদ থেকে তৈমূর আলমকে সরিয়ে জেলা বিএনপির এক নাম্বার যুগ্ম আহবায়ক মনিরুল ইসলাম রবিকে ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক করা হয়। এদিকে বিএনপি একাধিক সূত্র জানায়, নির্বাচনকালীন সময়ে তৈমূরকে দুটি পদ থেকে সরিয়ে দেয়ার বিষয়টি বিএনপি একটি কৌশর মাত্র। নির্বাচনের পর তৈমূর তার স্ব স্ব পদে ফিরে যাবেন। তৈমূর আলম যাতে ফ্রি এন্ড ফেয়ার ভাবে দলীয় ও সাংগঠনিক চাপ মুক্ত থেকে নির্বাচন করতে পারে। তাছাড়া যেহেতু বিএনপি বলে আসছে এই সরকারের আমলে তারা আর কোন নির্বাচনে অংশ নিবে না। সেখানে বিএনপির ব্যানারে তৈমূর নির্বাচনী মাঠে থাকলে রাজনৈতিকভাবে প্রশ্নের সম্মুখিন হবে বিএনপি। তাই তৈমূরকে দুটি পদ থেকে সরিয়ে দিয়ে আরেক দফা বোকা বানালো প্রতিপক্ষকে। এদিকে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী বিএনপি নেতা তৈমূর আলম খন্দকার বলেছেন, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পদ থেকে প্রত্যাহার বিষয়ে দল থেকে এখনও আমাকে কিছু জানায়নি। যদি এটা সত্য হয়ে থাকে, আলহামদুলিল্লাহ। আমি মনে করি বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান একটা সময়োচিত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তিনি আমাকে জনগনের জন্য মুক্ত করে দিয়েছেন। এখন আমি রিক্সাওয়ালা, ঠেলা গাড়িওয়ালাদের তৈমূর, রিক্সাওয়ালা ঠেলাওয়ালাদের কাছে ফিরে যাবো। আমি এখন জনমানুষের তৈমূর, গণমানুষের কাছে ফিরে যাবো। তিনি বলেন, আমার ভাগ্যের মালিক একমাত্র আল্লাহ। অন্য কেউ আমার ভাগ্যের মালিক এটা আমি বিশ্বাস করিনা। আপনারা জানেন আমি যেসব সংগঠন করি হকার, হোটেল শ্রমিক খেটে খাওয়া মানুষের সংগঠন করি। এই সংগঠনগুলো সিটি করপোরেশন বা পৌরসভার সাথে সরাসরি সম্পৃক্ত। তাদের একটা দীর্ঘদিনের দাবী আমি পৌরসভা বা সিটি করপোরেশনের দায়িত্ব নেব।  তিনি আরও বলেন, ২০১১ সালে দল নমিনেশন দিয়েছিল। সেবার দল সিদ্ধান্ত দিয়েছিল। তাদের সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে আমি নির্বাচন থেকে পাঁচ ঘন্টা আগে সরে গেছি। আমি আজ পর্যন্ত আমার দলকে প্রশ্ন করিনি কেন আমাকে সরিয়ে দেয়া হল, কেন প্রত্যাহার করা হল।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *