Home » শেষের পাতা » অধিগ্রহণ হচ্ছে নদীর জমি

কারুশিল্প মেলায় দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীড়

২২ জানুয়ারি, ২০২৩ | ১০:১৬ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 29 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট ঐতিহ্য সোনারগাঁও জাদুঘরে জমে উঠেছে মাসব্যাপী কারুশিল্প মেলা ও লোকজ সংস্কৃতি। প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও বাংলাদেশ লোকজ ও কারুশিল্প ফাউন্ডেশন এ মেলার আয়োজন করেছেন। এ মেলা হারিয়ে যাওয়া অতীতের সাংস্কৃতিক ও ঐতিহ্য বহন করে। এছাড়াও নতুন দিগন্তের সূচনায় এ মেলা মানুষের হৃদয়ে প্রানের সঞ্চরনা জোগায়। মেলায় সকলের মনমাতানো কারুশিল্প সামগ্রী ছাড়াও থাকছে নানান ধরনের সাংস্কৃতিক আয়োজন। এ আয়োজন উপভোগ করতে বহু দূর দূরান্ত থেকে আসছে দর্শনার্থীরা। মেলা শুরু হওয়ার মুহুর্ত থেকেই দর্শনার্থীদের পদচারণায় মুখরিত হয়েছে মেলার প্রাঙ্গন। এ মেলায় দর্শনার্থীদের নতুন কিছু দেওয়ার জন্য বিভিন্ন অঞ্চল থেকে কারুশিল্পীদের শিল্প পন্য পর্দশনীর জন্য শতাধিক স্টলের আয়োজন করা হয়েছে। এ স্টল গুলো এমন কিছু প্রদর্শন করবে যা দর্শনার্থীদের মন জুড়িয়ে যাবে। এ মেলায় সোনারগাওয়ের ঐতিহ্য জামদানি, বাশ,বেত,নকশি কাথা,টেপা পুতুল,শীতল পাটি এছাড়াও বিভিন্ন জেলা থেকে আগত কারুশিল্প সামগ্রী প্রদর্শন করা হয়েছে। এছাড়া ও নাগরদোলা, বায়োস্কোপ,পুতুল নাচসহ মনমাতানো বাহারি ধরনের বিনোদন রয়েছে। রয়েছে বাহারি রকমের খাবারের আয়োজন। এর সাথে দর্শনার্থীদের বিনোদন জন্য রয়েছে মঞ্চ কাপানো নাচ,গান, বাউল সঙ্গীত। এটি আমাদের দেশের একমাত্র লোকজ মেলা। হারিয়ে যাওয়া লোক ও কারুশিল্পকে সুন্দর ভাবে এখানে উপস্থাপন করা হয়। মেলায় আগত কয়েকজনের সাথে কথা বলে জানাযায় এই মেলা ইতিহাস ও ঐতিহ্যর মেলা। এ মেলায় অতীতের অনেক ইতিহাস বহন করে। তাই এ মেলায় দর্শনার্থীদের সমাগম দেখা যায়।  তবে সরকারি ছুটির দিন থাকায় অন্য দিনের চেয়ে আজ দর্শনার্থীদের উপচে পড়া ভীড় অনেকটাই লক্ষণীয়। আগন্তুক দর্শীনার্থীদের যেন কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে সেজন্য নিরাপত্তা ব্যবস্হা জোরদার করা হয়েছে। এছাড়াও গোয়েন্দা সংস্থার নজরদারি রাখা হয়েছে।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *