Home » শেষের পাতা » বন্দরে ২৭টি পূজামন্ডপে চলছে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি

তৈমুরের পক্ষে জাতীয় পার্টি মাঠে!

০৮ জানুয়ারি, ২০২২ | ৯:৪৪ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 93 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনের স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের পাশে নির্বাচনী প্রচারণায় নেমেছেন বিএনপি, আওয়ামীলীগ, জাতীয় পার্টি, জামায়েত ইসলাম, হেফাজতে ইসলাম সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী সমর্থক ও নির্বাচিত সাবেক-বর্তমান জনপ্রতিনিধিরাও! এতে দিনকে দিন তৈমুর আলমের হাতি মার্কার প্রতি জনসমর্থন বাড়ছে। তৈমুর আলম নির্বাচনে একের পর এক ম্যাজিক দেখিয়ে যাচ্ছেন। এরই ধারাবাহিকতায় আওয়ামী লীগের সাবেক সংসদ সদস্য, বিএনপির জেলা ও মহানগরীর নেতাকর্মী, জাতীয় পার্টির নেতাকর্মী, উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও ইউপি চেয়ারম্যানদের নিয়ে গণসংযোগ করে রীতিমত সবাইকে অবাক করে দিয়েছেন তিনি। গতকাল শুক্রবার সকাল থেকে বন্দরের ২৫নং ওয়ার্ডের কাজী নজরুল ইসলাম কলেজের সামনে থেকে এ গণসংযোগ শুরু হয়। এতে সর্বদলের, সর্বস্ত্ররের ভোটার ও সাধারণ মানুষরা অংশ নেন। ইতিমধ্যে আইনজীবী সমাজ সহ বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক ও অরাজনৈতিক সংগঠনগুলোও তার পক্ষ নিয়ে মাঠে নেমেছেন। উপরোক্ত সকলে তৈমূর আলম খন্দকারের ‘হাতি মার্কা’র পক্ষে ভোট চেয়ে মিছিল করেন এবং সকলের কাছে দোয়া চান। যারা জাতীয় পার্টির লাঙ্গল প্রতীকে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন তারাও তৈমুরের পক্ষে প্রকাশ্যে প্রচারণা চালালেন। এতে উপস্থিত ছিলেন সাবেক আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য এস এম আকরাম, বন্দর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মুকুল, কলাগাছিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টি নেতা দেলোয়ার হোসেন, বন্দর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টির এহসান উদ্দিন আহমেদ, মুছাপুর ইউনয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টির মাকসুদ হোসেন, স্বতন্ত্র নির্বাচনে জয়ী ধামগড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জাতীয় পার্টির নেতা কামাল হোসেন। এতে আরও উপস্থিত ছিলেন মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামাল, জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক কাজী নজরুল ইসলাম টিটু, বন্দর থানা বিএনপির সভাপতি নুর উদ্দিন, কেন্দ্রীয় ওলামা দলের সহ-সভাপতি মুন্সী সামসুর রহমান খান বেনু, বন্দর থানা যুবদলের সাবেক সভাপতি হাবিবুর রহমান দুলাল, সদর থানা ছাত্রদলের সভাপতি কাজী নাহিসুল ইসলাম সাদ্দামসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা। এ সময় বিএনপি, আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি, পেশাজীবী, নাগরিক ঐক্যের নেতাকর্মী, শ্রমিকসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষকে মিছিলে অংশ নিতে দেখা গেছে।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *