Home » শেষের পাতা » অধিগ্রহণ হচ্ছে নদীর জমি

ফতুল্লায় লেডি সন্ত্রাসীর লাইলীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ

১২ নভেম্বর, ২০২২ | ১০:৫৯ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 61 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট বহিরাগত সন্ত্রাসীদের মাধ্যমে ভাড়াটিয়াদের বের করে দিয়ে বাড়ী দখলের অপচেষ্টা চালিয়ে আসছে বলে অভিযোগ উঠেছে তালাকপ্রাপ্ত এক মহিলার বিরুদ্ধে। এমনকি ভাড়াটিয়য়াদের রুমে প্রবেশ করে ঘরের সরান্জম বাহিরে ফেলা দেয়াসহ বাড়ী ছেড়ে অর্ন্যত্র চলে যাওয়ার জন্য হুমকি ধামকি প্রদান করে আসছে লেডি সন্ত্রাসীখ্যাত ফাতেমা বেগম লাইলীর বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় শুক্রবার (১১ নভেম্বর) বিকালে জেলা পুলিশ সুপার এবং ফতুল্লা মডেল থানায় পৃথকভাবে দুটি অভিযোগ দায়ের করেন ভাড়াটিয়া নারগীছ বেগম। নারগীছ বেগম জানান, সে সহ ১১টি পরিবার ফতুল্লার শিয়াচর এলাকার ইলিয়াস মাতবরের বাড়ীতে ভাড়াটিয়া হিসেবে দীর্ঘদীন ধরে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করে আসছে। পারিবারিক কলহের বিষয়াদি নিয়ে আমাদের বসবাসরত বাড়ীর মালিক ইলিয়াস মাতবর তার স্ত্রী ফাতেমা বেগম লাইলীকে ইসলামী শরীয়ত মোতাবেক তালাক প্রদান করেন। তালাক প্রদানের পর থেকেই বাড়ীওয়ালার তালাকপ্রাপ্ত স্ত্রী লাইলীসহ অজ্ঞাত বহিরাগত সন্ত্রাসীরা আমাদের ভাড়া বাড়ীতে অনাধিকার ভাবে প্রবেশ করে এবং বাড়ী ছেড়ে চলে যাওয়ার জন্য বিভিন্ন ধরনের হুমকি ধামকি প্রদান করে আসছে। গত কয়েকদিন ধরে লেডি সন্ত্রাসী লাইলী এবং তার ক্যাডার বাহিনীকতৃক অব্যাহত হুমকির কারনে আতংকের দিনানিপাত করছেন। এ অবস্থায় সেসহ বাড়ীর অন্যান্য ভাড়াটিয়ারাও নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন বলে তিনি অভিযোগ করেন। লেডি সন্ত্রাসী লাইলীসহ তার বহিরাগত ক্যাডার বাহিনীর হাত থেকে রক্ষার জন্য জরুরী ভিত্তিতে জেলা পুলিশ সুপার এবং ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশের হস্তক্ষেপ দাবি করেছেন। অণ্যথায় ভয়ংকার লেডি সন্ত্রাসী লাইলীসহ তার বাহিনীর সদস্যরা বড় ধরনের ক্ষতি করতে পারেন বলে তিনিসহ তার সহযোগী ভাড়াটিয়া আমেনা বেগম, রিংকি, মাসুম, আলমগীর, আশরাফসহ ১১টি পরিবারের সদস্যরা শংকা প্রকাশ করেছেন। এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানার ওসি রিজাউল হক দিপু বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্তপূর্বক ভাবে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *