Home » প্রথম পাতা » ফতুল্লার কাশিপুরে মোস্তফার অত্যাচারে অতিষ্ট সাধারন মানুষ

বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার হলেও আমাদের ক্ষতির বিচার পাইনি: ডিসি

২৮ জানুয়ারি, ২০২২ | ১২:৩৭ অপরাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 53 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

নারায়ণগঞ্জের নবাগত জেলা প্রশাসক মঞ্জুরুল হাফিজ বলেছেন, একটা দেশকে পিছানোর জন্য হত্যা করা হয়েছে বঙ্গবন্ধুকে, খুনিদের বিচার হয়েছে, কিন্তু আমাদের যে ক্ষতি হয়েছে তার বিচার কিন্তু আমরা পাইনি। আজকে বঙ্গবন্ধু বেঁচে থাকলে আরও বিশ বছর আগে আমরা পৃথিবীর উন্নত দেশ হতে পারতাম। আজকে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ বিশ হাজার টাকা ভাতা পাচ্ছে এই বিশ হাজার টাকা আরও বিশ বছর আগে হতে পারতো যদি বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারকে হত্যা করা না হতো। তাদের হত্যা করে আমাদের স্বপ্নকে হত্যা করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে মর্গ্যান গার্লস স্কুল এন্ড কলেজে আনোয়ার হোসেন মিলনায়তনে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা  ও সম্মাননা চেক প্রদান অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, আজকে এখানে আমাকে বিশেষ অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানানোতে আমি নিজেকে সম্মানিত বোধ করছি, একজন বীর প্রতীকের সামনে দাঁড়িয়ে কথা বলা সম্মানের। আমি কখনো কখনো নিজেকে মনে করি যে আমি আসলে দুর্ভাগা  মানুষ। এজন্য যে আমি জাতির পিতার সৈনিক হতে পারিনি। আজকে আমার নামের আগে বীর থাকতে পারতো যদি আমার সুযোগ হতো জাতির পিতার নেতৃত্বে এদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে অংশ গ্রহণ করতে পারতাম। কিন্তু আমার তখন জন্ম হয়নি। তবে সেই কাজটি আমার পিতা আমার দাদা করেছিলেন। আমার দাদীও করেছিলেন, কিন্তু একটা কারণে আমি নিজেকে গর্বিত বোধ করি যে আমি স্বাধীন বাংলাদেশে জন্মগ্রহণ করেছি এবং সেই কাজটি আপনারা করেছেন। ডিসি আরও বলেন, জাতির পিতা নেতৃত্ব দিয়েছিলেন বলে আপনারা যুদ্ধ করেছিলেন। আমাদের বীর প্রতীক (গোলাম দস্তীর গাজী) ছিলেন বলে এই দেশে একটা জাতীয় মানচিত্র পেয়েছিলাম। জন্মের থেকেই কিন্তু কিছুটা সুবিধা হয়েছে যে আমরা স্বাধীন বাংলাদেশের নাগরিক হয়ে আজকে জেলা প্রশাসক হতে পেরেছি। জাতির পিতার নেতৃত্বে তার কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশকে আজকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন, আমরা অর্থনৈতিক মুক্তির কথা বলেছিলাম সে অর্থনৈতিক মুক্তির দিকে আমরা এগিয়ে যাচ্ছি। এই সময় বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা  ও সম্মাননা চেক প্রদান  অনুষ্ঠানে জেলার ১৬১ জন মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা ও সম্মানান স্বরূপ ১০ হাজার টাকার চেক প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানের নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো আনোয়ার হোসেন সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীর প্রতীক। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, নবনির্বাচিত নাসিক মেয়র ডা, সেলিনা হায়াৎ আইভী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মোস্তাফিজুর রহমান জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার নুরুল হুদা, জেলা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কাদির, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ সদস্য জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *