Home » শেষের পাতা » হাইকোর্টের আদেশ অমান্য করে সড়ক-মহাসড়কে চলছে চাঁদাবাজী

সিদ্ধিরগঞ্জে মানবপাচার চক্রের ৬ সদস্য গ্রেপ্তার

০৬ আগস্ট, ২০২২ | ১০:৫৩ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 66 Views

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ  নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থেকে মানবপাচার চক্রের ১ জন পুরুষ ও ৫ নারী সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১১। এ সময় ভুক্তভোগী ৩ নারীকে উদ্ধার করে র‌্যাব। তাদেরকে উন্নত জীবনের প্রলোভন দেখিয়ে পার্শ্ববর্তী দেশে পাচারের জন্য পাচারকারী চক্রটি উক্ত স্থানে নিয়ে আসেন। গ্রেপ্তারকৃত মানব পাচারকারীরা হলেন, মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানের হিল্লাপাড়ার তোফাজ্জল হোসেন ইরানের স্ত্রী ঝুমা আক্তার (২৮), রিপন শেখের স্ত্রী শারমিন আক্তার (২৯), নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে রহমানের মেয়ে মিনারা রিনা (৩৫), সিদ্ধিরগঞ্জের মৃত রাজ্জাক মিস্ত্রির ছেলে শাহজামাল (৪০), চাঁদপুরেএ ফরিদগঞ্জের চরচন্নার শাহজামালের স্ত্রী রাবেয়া আক্তার (২৭) ও নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজির মৃত শহিদুলের স্ত্রী কমলি খাতুন (৩২)। এ সময় পাচারের কাজে ব্যবহৃত বেশ কয়েকটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করে র‌্যাব। এছাড়াও তাদের কাছ থেকে ভিকটিমের ডেবিট কার্ড ও টাকা রাখার ব্যাগ উদ্ধার করা হয়। গতকাল শুক্রবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান র‌্যাব ১১ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল তানভীর মাহমুদ পাশা। সংবাদ সম্মেলনে তিনি জানান, গত বৃহস্পতিবর বিকেলে জনৈক নারী ভিকটিম র‌্যাব -১১ ব্যাটালিয়ন সদর দপ্তরে হাজির হয়ে লিখিতভাবে অভিযোগ করেন যে, মানব পাচারকারীরা তাকে বিউটি পার্লারে কাজ দেওয়ার কথা বলে যশোর বেনাপোল বর্ডারে নিয়ে যান। এক পর্যায়ে তাকে পার্শবর্তী দেশে কাঁটাতারের বেড়া অতিক্রম করে যাওয়ার জন্য বললে তিনি বুঝতে পারেন যে তাকে পার্শ্ববর্তী দেশে পাচার করা হচ্ছে। এরপর যেতে রাজি না হওয়ায় পাচারকারীরা তাকে ব্যাপক মারধর করেন। এক পর্যায়ে তিনি কৌশলে পালিয়ে বাসে করে যশোর থেকে নারায়ণগঞ্জ চলে আসেন। অভিযোগ পেয়ে র‌্যাব ১১ ভিকটিমের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজি বাতানপাড়া (মসজিদ রোড) এলাকায় বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে ৫ জন নারী ও ১ জন পুরুষ নারী পাচারকারী সদস্যকে আটক করে। অভিযান পরিচালনাকালে আরো ২ জন নারী ভিকটিমকে উদ্ধার করা হয় যাদের মধ্যে ১ জন অপ্রাপ্ত বয়স্ক। উদ্ধারদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, তাদেরকেও উন্নত জীবনের প্রলোভন দেখিয়ে পার্শ্ববর্তী দেশে পাচারের জন্য পাচারকারী চক্রটি উক্ত স্থানে নিয়ে আসেন। অপ্রাপ্ত বয়স্ক ভিকটিমকে ৪ আগস্ট রাতেই পার্শ্ববর্তী দেশে পাচার করার পরিকল্পনা ছিল। তিনি আরো জানান, প্রাথমিক অনুসন্ধান ও আটকদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, এই চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে সহজ-সরল দরিদ্র নারীদের উন্নত জীবনের প্রলোভন দেখিয়ে অবৈধভাবে পার্শ্ববর্তী দেশে পাচার করে আসছেন। এ ঘটনায় আটকদের বিরুদ্ধে সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় একটি মামলা রুজু ও আসামিদের আদালতে প্রেরণ করেছে।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *