Home » প্রথম পাতা » শ্রী কৃষ্ণের জন্মাষ্টমী আজ

সিদ্ধিরগঞ্জে রেন্ট-এ কার থেকে ফারুকের চাঁদাবাজিতে অতিষ্ঠ

০৬ জুলাই, ২০২২ | ৯:৫৫ পূর্বাহ্ণ | ডান্ডিবার্তা | 38 Views

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট ঈদকে সামনে রেখে সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল মোড়ে সরকারি জায়গা দখল করে গড়ে উঠা রেন্ট-এ কার স্ট্যান্ড থেকে ফের ফারুকের চাঁদাবাজি। এতে অতিষ্ঠ হয়ে পরেছে গাড়ির মালিকসহ চালকেরা। ওই রেন্ট-এ কারের চাঁদাবাজির নিয়ন্ত্রণ এখন ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগের বিতর্কিত নেতা সিব্বির আহম্মেদের ঘনিষ্ঠ সহযোগী চাঁদাবাজ ফারুকের হাতে। সরকারী জমিতে জোরপূর্বক অবৈধ ভাবে গড়ে উঠা রেন্ট-এ কার স্ট্যান্ড থেকে প্রতি মাসে প্রায় ২ লাখ টাকা চাঁদা আদায় করছেন তিনি। কিছুদিন পূর্বে স্থানীয় পত্রিকাগুলোতে ফারুকের চাঁদাবাজির সংবাদ প্রকাশের পর বেশ কিছুদিন এই চাঁদাবাজি বন্ধ ছিলো বলে দাবি করেন নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কিছু প্রাইভেটকার চালক। তাদের অভিযোগ সম্প্রতি সেই চাঁদাবাজ ফারুক ঈদকে সামনে রেখে বিভিন্ন মহলকে ম্যানেজের কথা বলে ফের আবারও চাঁদাবাজি শুরু করেছে। চাঁদাবাজ ফারুক নিজেকে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার এক কর্মকর্তার ভাই পরিচয় দিয়ে থাকেন। জানা গেছে, ফারুক তার চাঁদাবাজির বানিজ্য টিকিয়ে রাখতে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে নানা ধরনের সুযোগ সুবিধা দিয়ে থাকেন। এসব সুবিধা পেয়ে পুলিশ থানার যেকোন আয়োজনে এই চাঁদাবাজ ফারুককেই আগে নিমন্ত্রণ জানান। যার ফলে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে স্থানীয় সাংবাদিকরা তাদের অনুষ্ঠান বয়কট করেছেন। অনেকে বলছেন সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ক্যাশিয়ার হচ্ছেন এই চাঁদাবাজ ফারুক। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক রেন্ট-এ কার স্ট্যান্ডের এক প্রাইভেটকার চালক বলেন, কি বলবো ভাই এমনিতেই আমাদের গাড়ির টিপ নেই। দিনদিন খরচ বেড়েই চলছে। ছেলে-মেয়ে নিয়ে এবারের ঈদ করতে পারবো কিনা সন্দেহ আছে। তার উপরে ফারুক পুলিশকে ঈদে বকশিস দিতে হবে বলে বাড়তি টাকা নিচ্ছেন। তিনি আরও বলেন, এটাকে বকশিস বলেনা এটা হচ্ছে চাঁদাবাজি। এদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক আরেক চালক জানান, শুনছি তার বিরুদ্ধে নাকি পত্রিকায় নিউজ হইছে তাই কিছুদিন আমাদের কাছ থেকে ফারুক কোন টাকা নেয় নাই। এতদিন আমরা ভালোই ছিলাম। এখন আবার নতুন করে টাকা আদায় শুরু হয়েছে। আসলে পুলিশও এই টাকার ভাগ পায়। তা না হলে পুলিশ ঠিকই তাদের গ্রেফতার করতো। তবে চাঁদাবাজির এই টাকা পুলিশ, ট্রাফিক পুলিশ, রাজনৈতিক শীর্ষ নেতার পকেটেও যায় নিয়মিত। সম্প্রতি রেন্ট-এ কার মালিক সমিতির নামে (চাঁদাবাজ কমিটি) একটি কমিটি গঠন করে তারা এই চাঁদাবাজি করছেন বলে জানা গেছে। শিমরাইল মোড় এলাকায় ক্ষুদ্র ব্যবসায়ি থেকে শুরু করে গাড়ির চালকরা ফারুককে চাঁদাবাজ ও থানা পুলিশের বর্তমানে ক্যাশিয়ার হিসেবেই চিনেন। অভিযোগ রয়েছে, এই রেন্ট-এ কার স্ট্যান্ডের গাড়ি দিয়ে মাদক পাচারের অভিযোগ দীর্ঘদিনের। দেশের বিভিন্ন জেলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে এ স্ট্যান্ডের একাধিক গাড়ি মাদকসহ আটক হয়েছে। জানা গেছে, এই রেন্ট-এ কারের কিছু গাড়ি চলছে অনিয়মিত নাম সর্বস্ব দৈনিক পত্রিকা ও অনুমোদনহীন টিভি চ্যানেলের স্টিকার লাগিয়ে। যার শেল্টার দিয়ে থাকেন চাঁদাবাজ ফারুক। বিভিন্ন অপরাধীরা মিডিয়া স্টিকার লাগানো এসব গাড়ি ভাড়া নিয়ে চালকদের ম্যানেজ করে ছিনতাই ও মাদক পাচার করছে। এর মধ্যে ফারুকের গাড়িতেও টিভি চ্যানেলের স্টিকার লাগানো রয়েছে। পুলিশের চোখকে ফাঁকি দিতেই মূলত ফারুক এই কৌশল অবলম্বন করে থাকেন। সম্প্রতি বেশ কিছুদিন পূর্বে দেশের বিভিন্ন জেলায় এই স্ট্যান্ডের (ঢাকা মেট্রো-গ-২৫-৩১৯৫), (ঢাকা মেট্রো-গ-৩২-৩৬০০), (ঢাকা মেট্রো-চ-১৬-০১০১), (ঢাকা মেট্রো-গ-২৫-২৯২১), (ঢাকা মেট্রো-গ-৩৩-৮৫৭৩), (ঢাকা মেট্রো-গ-৩৯-১২১০ নম্বর) গাড়ি ফেন্সিডিল ও ইয়াবাসহ র‌্যাব, থানা ও গোয়েন্দা পুলিশের হাতে আটক হয়েছে। মাদক পাচারে জড়িত রয়েছে চাঁদাবাজ ফারুকের মালিক সমিতির নেতারাও। এদিকে ফারুক যে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক দাবী করেন নিজেকে সেই প্রস্তাবিত কমিটির সভাপতি করা হয়েছে নব্য আওয়ামীলীগার বিতর্কিত সিব্বির আহম্মেদের ভাই মো: জসিম উদ্দিনকে। বিতর্কিত সিব্বির আহম্মেদ তার ভাই জসিমকে আড়ালে রেখে তারই ঘনিষ্ঠ সহযোগী ফারুককে প্রকাশ্যে চাঁদাবাজিতে রেখেছেন। তাই বর্তমানে চাঁদাবাজির নেতৃত্ব দিচ্ছেন ফারুক হোসেন ওরফে চাঁদাবাজ ফারুক। পরিসংখ্যান মতে আড়াই শতাধিক গাড়ি থেকে মাসে প্রায় ২ লক্ষাধিক টাকা চাঁদা আদায় করা হচ্ছে। তবে প্রশাসনকে ম্যানেজের দায়িত্ব রয়েছে চাঁদাবাজ ফারুক উপর। এ বিষয়ে চাঁদাবাজির নেতৃত্বে থাকা প্রস্তাবিত কমিটির সাধারণ সম্পাদক ফারুক জানান, জোর করে কোন চাঁদা আদায় করা হচ্ছে না। নতুন করে আমরা একটা সমিতি গঠন করেছি। সেখানে চালক ও বিভিন্ন খরচ বাবদ টাকা উঠানো হয়। সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মশিউর রহমান বলেন, ঈদকে ঘিরে কোন প্রকার চাঁদাবাজি করতে দেওয়া হবে না। পুলিশ কোন চাঁদাবাজির টাকার ভাগ পায়না। কেউ অভিযোগ দিলে চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comment Heare

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *