শেষ গন্তব্যের খোঁজে না’গঞ্জ বিএনপি

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

রাজনীতিতে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করলেও ক্ষমতাসীনদের একের পর এক কৌশলের কাছে মার খাচ্ছে নারায়ণগঞ্জ বিএনপির আন্দোলন। রীতিমত গন্তব্যহীন পথে হাটছে নারায়ণগঞ্জ বিএনপির রাজনীতি। বিগত সময়ে যে সমস্ত নেতা দলীয় নানা কর্মসূচীতে সিংহের গর্জণ ছেড়লেও বর্তমানে ওই সব নেতাদের দেখা নেই রাজপথে। এসব নেতারা অনেকটা বিড়ালের মতো লেজ গুটিয়ে গর্তে অবস্থান নিয়েছে একাদশ সংসদ নির্বাচনের আগেই। এ কারণে দিক নিদের্শনাহীনতায় ভূগছে দলের তৃনমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা। ফলে দলীয় কর্মীরা ভূগছে নানা শংসয়ে। দলের নেতাকর্মীদের দিক নিদের্শনাহীনতার কারণে কেউ রাজনীতির ভোল পাল্টাতে পারে, কেউ দেশ ত্যাগ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, আবার কেউ কেউ রাজনীতি থেকে মুখ ফিরিয়ে নিতে আগ্রহী হয়ে উঠেছেন। জানাগেছে, গতকাল শনিবার বএনপি চেয়ারপার্সণ বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবীতে কেন্দ্রীয় কর্মসূচি পালনে নামেনি জেলা বিএনপি। নির্বাচনের এক সপ্তাহ আগেই জেলা বিএনপির অধিকাংশ নেতাই আত্মগোপনে চলেগেছে। এদিকে কেন্দ্রীয় কর্মসূচী পালনের নামে ১০/১২ জন নিয়ে ফটোসেশন করেছে মহানগর বিএনপি। অথচ নির্বাচনের পর এই ছিল বিএনপির প্রথম কর্মসূচী। আর এই কর্মসূচী পালনে ব্যর্থ হওয়ায় নারায়ণগঞ্জে বিএনপির অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। সূত্রমতে, দলের ক্রান্তি সময়েও নারায়ণগঞ্জে বিএনপির শীর্ষ নেতাদের সমন্বহীনতা ও দ্বন্দ্বের কারনে বিএনপির রাজনীতিতে চরমা হতাশা বিরাজ করছে। একদিকে সরকারের শক্ত অবস্থান অন্যদিকে দলের মধ্যে দ্বন্দ্ব আর কোন্দল, এ দুই নিয়ে দলের নেতাকর্মীরা সিদ্ধানাতহীনতার দোলাচলে ভূগছেন। যে কারণে একাদশ সংসদ নির্বাচনে ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থীদের পক্ষে রাজপথে নামতে দেখা যায়নি বিএনপির নেতাকর্মীদের। পাশাপাশি চলমান পরিস্থিতির কারণে দলের কিছু নেতাকর্মী দেশ ত্যাগ করার চিন্তা করছে, কেউ রাজনীতি ছাড়তে চাচ্ছেন, আবার কেউ দল পাল্টানোর চিন্তা করছে বলে বিভিন্ন সূত্রে জানাগেছে। এরই মধ্যে অনেক শীর্ষ নেতা দেশ ত্যাগ করেছেন। আবার কেউ ক্ষমতাসীনদের সাথে আতাঁত করেই রাজনীত%

About ডান্ডিবার্তা

View all posts by ডান্ডিবার্তা →