মে দিবসে রাজপথ কাঁপাতে চান তৈমূর

 

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট

দলীয় আন্দোলন সংগ্রাম সহ যে কোন দিবসেই নারায়ণগঞ্জের রাজপথ দখলে থাকে বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের সমর্থিত নেতাকর্মীদের দিয়ে। সকল রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীদের শোডাউনের চেয়ে অ্যাডভোকেট তৈমূরের শোডাউনে নেতাকর্মী সমর্থকের সংখ্যা থাকে বেশি। যার ধারাবাহিকতায় প্রতিবারের মতো এবারও মহান মে দিবসে নারায়ণগঞ্জের রাজপথে বড় শোডাউনের প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছেন অ্যাভভোকেট তৈমূর আলম খন্দকার। আগে থেকেই নেতাকর্মীদের প্রস্তুত হওয়ার জন্য বিভিন্নভাবে দিক নির্দেশনা দিচ্ছেন তিনি। এবারের মহান মে দিবসের কর্মসূচি সফল করার লক্ষ্যে গতকাল  বৃহস্পতিবার বিকেলে মাসদাইরের মজলুম মিলনায়তনে শ্রমিক দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীদের নিয়ে প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেই সাথে এই সভায় অন্যান্য অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরাও উপস্থিত ছিলেন। উপস্থিত থাকা সকল নেতাকর্মীদেরই লক্ষ্য হচ্ছে মে দিবসে অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের নেতৃত্বে নারায়ণগঞ্জের রাজপথে বড় ধরনের শোডাউন করবেন। বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির স্লোগানে মুখরিত করবেন নারায়ণগঞ্জ শহর। তারা সকলেই অ্যাডভোকেট আলম খন্দকারের নেতৃত্বে ঐক্যমত হয়েছেন। নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির সাবেক সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক প্রবীণ বিএনপি নেতা আনোয়ার হোসেন খানের সভাপতিত্বে প্রস্ততি সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি ও বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা অ্যডাভোকেট তৈমূর আলম খন্দকার। অ্যডাভোকেট তৈমূর আলম খন্দকার বলেন, সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে থেকে মহান মে দিবসের কর্মসূচিকে সফল করতে হবে। নারায়ণগঞ্জে সকল থানার নেতাকর্মীদের নিয়ে সমন্বয় করে কাজ করতে হবে। আমরা নারায়ণগঞ্জ বিএনপিকে জাগ্রত করতে চাই। সবাইকে দেখিয়ে দিতে চাই যে কোন পদ পদবী না পেয়েও প্রকৃত বিএনপির নেতাকর্মীরা জেগে উঠেছে। আমরা বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা মুক্তির আন্দোলনকে ত্বরান্বিত করতে চাই। যেহেতু শ্রমিক দিবসের অনুষ্ঠান, তাই মূল ভূমিকায় থাকতে হবে শ্রমিক দলের। আশা করি এবারের মে দিবসলেও আমরাও সফল হতে পারবো। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন মহানগর যুবদলের সভাপতি মাকসুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ, জেলা ওলামাদলের সভাপতি শামসুর রহমান খান বেনু, শহর বিএনপির সাবেক সহ-সভাপতি সুরুজ্জামান, জেলা শ্রমিকদলের সাবেক সভাপতি নাসির হোসেন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো: শাহজাহান, বন্দর থানা যুবদলের সভাপতি আমির হোসেন, বিএনপি নেতা নুরুল হক চৌধুরী দিপু, আইনজীবী নেতা সামসুজ্জামান খোকা, নারায়ণগঞ্জ সদর থানা বিএনপি নেতা বিলাল হোসেন, বিএনপি নেতা সরকার আলম, জয়নাল আবেদীন, মহানগর যুবদলের সহ সভাপতি আক্তার হোসেন খোকন শাহ, মোক্তার হোসেন, সেলিম মিয়া, কাশিপুর ইউনিয়ন যুবদলের সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান রতন, মহানগর যুবদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আল আমিন খান, শ্রমিকদল নেতা ফারুক হোসেন, ফজলুল হক, সেলিম হোসেন, জেলা ওলামাদের সাধারণ সম্পাদক ইউনুস আলী ও সাংগঠনিক সম্পাদক আমির হোসেন খান সহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা। প্রবীণ বিএনপি নেতা আনোয়ার হোসেন খান বলেন, আমরা অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ আছি। নারায়ণগঞ্জে তৈমূরের উপরে আর কোন নেতা নেতা নেই। বর্তমানে নারায়ণগঞ্জে যে সকল কমিটি হয়েছে সেগুলোর মান অন্যান্য রাজনৈতিক দলের ধারে কাছেও নেই। তাই আমরা অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের নেতৃত্বে মহান দিবসের কর্মসূচি পালন করবো।  মহান মে দিবস উপলক্ষ্যে নেতাকর্মীরা এদিন সকাল ৯ টায় নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের সামনে একত্রিত হবেন। এরপর সেখান থেকে বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারের নেতৃত্বে নেতাকর্মীরা নারায়ণগঞ্জ শহরে বিশাল শোডাউন করেন। এর আগে স্বাধীনতা দিবসেও অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকালের নেতৃত্বে নারায়ণগঞ্জ বিএনপির নেতাকর্মীরা বিশাল শোডাউন করেছিলেন। শহর বিএনপির সাবেক সহ-সভাপতি সুরুজ্জামান বলেন, আপনারা সকলেই অ্যাডভোকেট তৈমূর আলম খন্দকারকে নিয়ে এগিয়ে যান। আপনারা একজন বড় মাপের নেতা পেয়েছেন। মে দিবসে শ্রমিক দলকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে হবে।

About ডান্ডিবার্তা

View all posts by ডান্ডিবার্তা →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *