নিহত বোমা লিপুর ভাই ডাকাত শাহীন গ্রেফতার

ডান্ডিবার্তা রিপোর্ট
ক্রসফায়ারে নিহত সন্ত্রাসী মাদক সম্রাট বোমা লিপুর ভাই ডাকাত শাহীনকে(৩৫) হেরোইনসহ গ্রেফতার করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ(ডিবি)। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১টায় ফতুল্লার পিলকুনী ভূতের বাড়ি এলাকা থেকে গ্রেফতার করে। এসময় তার কাছ থেকে ২,শ ১০ পুরিয়া হেরোইন উদ্ধার করে। গ্রেফতারকৃত ডাকাত শাহীন পিলকুনি এলাকার মৃত শামসুল হকের ছেলে। শাহীনের বিরুদ্ধে মাদক,ডাকাতিসহ এশাধিক মামলা রয়েছে বলে পুলিশ নিশ্চিত করেছে। ডাকাত শাহীনকে গ্রেফতাররে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের এসআই কামরুল হাসান। এ ঘটনায় ফতুল্লা মডেল থানায় মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে একটি মামলা দায়ের হয়েছে। উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার ভোর রাতে ফতুল্লায় জেলা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সাথে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছে ডাকাত শাহীনের ছোট ভাই লিপু ওরফে বোমা লিপু। ফতুল্লার দাপা বালুর মাঠ এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে একটি ওয়ান শুটার গান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয় বলে পুলিশ জানিয়েছে। ক্রসফায়ারে নিহত লিপুর বিরুদ্ধে ডাকাতি, মাদক, অস্ত্র, বোমা ও নারী নির্যাতনসহ ১৬টিরও বেশি মামলা রয়েছে। নারায়ণগঞ্জ ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শক এসআই কামরুল হাসান জানান, গত বুধবার সন্ধ্যায় লিপুকে গ্রেপ্তারের পর জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে জানায় তার কাছে মাদক ও অস্ত্র রয়েছে। তার দেওয়া তথ্যমতে রাতে দাপা বালুর মাঠ এলাকায় অভিযানে গেলে লিপুর সহযোগীরা তাকে ছিনিয়ে নিতে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়ে। গোলাগুলির এক পর্যায়ে লিপুর সহযোগীরা তাকে নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় গুলিবিদ্ধ হয় লিপু। পরে কাছে গিয়ে দেখা যায় গুলিবিদ্ধ হয়ে লিপু পড়ে আছে। এসময় ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশীয় তৈরি ওয়ান শুটার গান ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। পরে তাকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। গোলাগুলির সময় আহত হন ডিবি পুলিশের পরিদর্শক এনামুল হক, এসআই কামরুল হাসান, এএসআই জুয়েল ও কনস্টেবল নাদিম। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। পুলিশের দাবি, নিহত লিপু আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সদস্য ও জেলা পুলিশের তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী। তাকে ধরিয়ে দিতে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে ১০ হাজার টাকা পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছিল।

About ডান্ডিবার্তা

View all posts by ডান্ডিবার্তা →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *